ব্রেকিং নিউজ

কারাগারে খুন যুবলীগ নেতা মুহুরী: হাসপাতাল ভাংচুর


৩০ মে, ২০১৯ ২:৫৯ : পূর্বাহ্ণ

চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি অবস্থায় খুন হলেন ইমরানুল করিম হত্যাসহ বিভিন্ন মামলার আসামি যুবলীগ ক্যাডার অমিত মুহুরী। বুধবার (২৯ মে) রাতে তার মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চট্টগ্রাম কারাগারের জেলার নাছির আহমেদ।

কারাগার সূত্রে জানা গেছে, কারাগারে নিজেদের মধ্যে মারামারিতে নিহত হন মুহুরী। ৩২ নম্বর সেলে এ ঘটনা ঘটে। অপর এক কয়েদির ইটের আঘাতে গুরুতর আহত হন মুহুরী। পরে তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

নিহত অমিত যুবলীগ নেতা হেলাল আকবর চৌধুরী ওরফে বাবরের অনুসারী।

চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার কামাল হোসেন বলেন, ৩২ নম্বর সেলে রিপন নামের একজনের সঙ্গে কথা কাটাকাটি হয় অমিত মুহুরীর। পরে রিপন ‘ভারী জিনিস’ দিয়ে অমিতকে আঘাত করে। আহত অবস্থায় চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে মারা যায় অমিত মুহুরী।

২৮ নং ওয়ার্ডে
২৮ নং ওয়ার্ড গেইট

এদিকে অমিত মুহুরীর মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে একদল বিক্ষুব্ধ যুবক চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ(চমেক) হাসপাতালের ২৮ নাম্বার ওয়ার্ডে ভাংচুর চালায়। হামলায় চালায় ওয়ার্ডের কলাপসিবল গেইট,ভেতরের কয়েকটি কক্ষের কাচের জানালা ভাংচুর করে। এ সময় সাধারণ রোগীদের মধ্যে ব্যাপক আতংক ছড়িয়ে পড়ে।

চমেক হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ জহিরুল হক ভূঁইয়া জানান, ‘রাত দুটার দিকে একদল যুবক ২৮ নাম্বার ওয়ার্ডে হামলা করে৷তারা হাসপাতালের বিভিন্নস্থানেও ব্যাপক ভাংচুর চালায়।

পরে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রেণে আনা হয়।

অমিত মুহুরি
নিহত অমিত মুহুরী

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালে নগরীর নন্দনকাননে যুবলীগের কর্মী ইমরানুল করিমকে  নৃশংসভাবে খুনের পর ড্রামে ভরে এসিড দিয়ে মরদেহ গলিয়ে দীঘিতে ফেলে দেয়ার মামলার আসামি অমিত। ওই বছরের সেপ্টেম্বরে  কুমিল্লা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এছাড়া পূর্বাঞ্চল রেলের কোটি টাকার দরপত্র নিয়ে জোড়া খুনের মামলার আসামিও ছিলেন অমিত মুহুরী। তার বিরুদ্ধে হত্যা, অস্ত্র ও চাঁদাবাজির অভিযোগে ১৫টি মামলা রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

বিএনএ/ হাসান মুন্না,এসজিএন।

ট্যাগ :

আরো সংবাদ