ব্রেকিং নিউজ

সততার বিরল দৃষ্টান্ত


৩১ মে, ২০১৯ ১২:৩৪ : অপরাহ্ণ

মিমি সুপার মার্কেট সংলগ্ন কেবিএইচ প্লাজার সেলিম পাঞ্জাবী মিউজিয়াম’ এ  ঈদ শপিং করতে গিয়ে ইসলামী ব্যাংক হাসপাতাল আগ্রাবাদ চট্টগ্রাম’এর এক নারী চিকিৎসক পার্টস( মানি ব্যাগ) হারান।

তার পার্টসটি পেয়ে  ক্যাশ কাউন্টারে রেখে দেন ম্যানেজার ইমরান হোসেন তনু। ঘটনাটি বৃহস্পতিবার রাতের। শুক্রবার সকালে ওই নারী চিকিৎসক হাসপাতালে যেতে বের হতে দেখেন তার পার্টসটি নেই! ঘরে খোঁজাখুজি করে পাননি। পরে সেলিম পাঞ্জাবী মিউজিয়ামে ফোন করেন। তারা জানান, তার ফেলে যাওয়া পার্টসটি তারা সংরক্ষণ করে রেখেছে। শুক্রবার বিকালে তিনি সেলিম পাঞ্জাবী মিউজিয়ামে গিয়ে পার্টসটি ফেরত পান।

এ সময় তিনি আবেগ তাড়িত হয়ে যান। এ প্রতিবেদককে বলেন, এই যুগে এমন সততার দৃষ্টান্ত বিরল। হাতবদল হওয়া জিনিসপত্র টাকা পয়সা কেউ দিতে চায় না।  হারানো পার্টস ফিরে পেয়ে  অনেক হয়রানি থেকে রক্ষা পেলাম।

তিনি আরো জানান,  আগ্রাবাদস্থ ইসলামী ব্যাংক হাসপাতালের ডিউটি শেষ করে রাতে ঈদের শপিং করতে বের হন। স্বামীসহ নগরীর কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ মার্কেটে যান। মধ্যরাতে মিমি সুুপার মার্কেটের  সেলিম পাঞ্জাবী মিউজিয়ামে গিয়ে  স্বজনদের জন্য বেশ কয়েকটি পাঞ্জাবী ও পাজামা ক্রয় করেন।

পেমেন্ট দেয়ার সময় দোকানটির ক্যাশ কাউন্টারে ভিড় কম ছিল।কেবল ওই দম্পতি।  কাপড় ও অন্যান্য শপিং ব্যাগ গুছিয়ে নিতে গিয়ে ভুলক্রমে হাতের পার্টসটি ক্যাশ কাউন্টারে ফেলে আগ্রাবাদ সিডিএর বাড়িতে  ফিরে যান।

সকালে  হাসপাতালে যাওয়ার মুহুর্তে নারী চিকিৎসক বুঝতে পারেন তিনি পার্টস হারিয়েছেন। অনেক খোঁজাখুজি করেন।মনটাও তার খুব খারাপ হয়ে যায়। পার্টসে ছিল তার ব্যক্তিগত আইডি কার্ড, তিনটি ক্রেডিট কার্ড, একটি ডেবিট কার্ড ও বেশ কিছু নগদ টাকা।

নিশ্চিত ছিলেন সর্বশেষ কাপড় ক্রয় করা দোকানে তিনি পার্টসটি বের করে ছিলেন। আজ শুক্রবার সকালে তিনি সেলিম পাঞ্জাবী মিউজিয়ামে   সাথে যোগাযোগ করলে তারা পার্টসটি পাবার কথা স্বীকার করে ন। শুক্রবার জুমার পর আনতে যেতে বলেন। পার্টসটি ফেরত পেয়ে  ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান সেলিম পাঞ্জাবী মিউজিয়ামের মালিক ও কর্মকর্তাদের ।

সেলিম পাঞ্জাবী মিউজিয়াম’ এর ম্যানেজার ইমরান হোসেন তনু বলেন, ক্রেতা প্রায় ভুল করে তার মোবাইল পার্টস,এমনকি ক্রয় করা জিনিসপত্র ফেলে যান। আমরা তা যত্ন করে রেখে দিই। পরে প্রমাণ দিয়ে ক্রেতারা তা নিয়ে যান। নারী চিকিৎসক যে পার্টস ফেলে গিয়েছিলেন তা আমরা বুঝতে পারি। আজ তার হাতে সেটি ফেরত দিতে পেরে আমরা নিজেদেরকে ধন্য মনে করছি বলেন, ম্যানেজার ইমরান হোনেন তনু।

বিএনএ/এসজিএন

ট্যাগ :

আরো সংবাদ