ব্রেকিং নিউজ

দুদক পরিচালক বরখাস্ত


১০ জুন, ২০১৯ ৫:৪২ : অপরাহ্ণ

ঢাকা: পুলিশের বিতর্কিত ডিআইজি মিজানের থেকে ঘুষ নেয়ার অভিযোগে দুর্নীতি দমন কমিশনের পরিচালক খন্দকার এনামুল বাছিরকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। তদন্ত কমিটির প্রতিবেদনের ভিত্তিতে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন,দুদক চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ।

সোমবার(১০ জুন) দুদক কার্যালয়ে সাংবাদিকদের তিনি আরও বলেন, কোনো একজন কর্মকর্তার অপরাধের দায় পুরো প্রতিষ্ঠান নেবে না। এই ঘটনায় তদন্ত করে চূড়ান্ত ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানান ইকবাল মাহমুদ।

এর আগে নারী নির্যাতনের অভিযোগে দায়িত্ব থেকে প্রত্যাহার হওয়া ডিআইজি মিজানুর রহমানের অবৈধ সম্পদের তদন্ত শুরু করেছিল দুদক। এই তদন্ত করতে গিয়ে দুদকের পরিচালক খন্দকার এনামুল বাছির ৪০ লাখ টাকা ঘুষ নিয়েছেন বলে অভিযোগ করেন মিজানুর রহমান।

গত ছয় মাস ধরে এ নিয়ে দুজনের মধ্যে কথোপকথনের অডিও রেকর্ড ফাঁস হয়ে যায়। রেকর্ড অনুযায়ী চলতি বছরের জানুয়ারিতে প্রথমে ২৫ লাখ ও পরে ১৫ লাখ টাকা দেন মিজানুর। কিন্তু গত ২ জুন খন্দকার এনামুল বাছির ডিআইজি মিজানুরকে জানান, তিনি প্রতিবেদন জমা দিয়েছেন। তবে দুদক চেয়ারম্যান ও কমিশনারের চাপে তাঁকে অব্যাহতি দিতে পারেননি। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে  টাকাপয়সা লেনদেনের সব কথা ফাঁস করে দেন মিজানুর। প্রমাণ হিসেবে হাজির করেন এনামুল বাছিরের সঙ্গে কথোপকথনের একাধিক অডিও রেকর্ড। এ বিষয়ে  সংবাদ প্রচার হওয়ার পর তাৎক্ষণিক দুদক পরিচালক এনামুল বাছিরের বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি গঠন করে দুদক।

অভিযোগ তদন্ত করতে দুদক সচিব মুহাম্মদ দিলওয়ার বখতকে প্রধান করা হয়। কমিটির অন্য দুই সদস্য হলেন- লিগ্যাল অনুবিভাগের মহাপরিচালক মফিজুর রহমান ভূঁইয়া ও প্রশাসন অনুবিভাগের মহাপরিচালক সাঈদ মাহবুব খান।কমিটির প্রতিবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঘটনার সত্যতা পাওয়ায় দুদকের কমিশনারের বিরুদ্ধে আইনানুযায়ী ব্যবস্থা ও তাঁকে দুদক পরিচালকের পদ থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।তবে,অভিযোগ অস্বীকার করেছেন দুদক পরিচালক এনামুল বাছির

আর করিম চৌধুরী/এস জি নবী

 

ট্যাগ :

আরো সংবাদ