ব্রেকিং নিউজ

দুর্ঘটনা হ্রাস ও শৃংখলা ফেরাতে সড়ক পরিবহন আইন বাস্তব সম্মত


৫ নভেম্বর, ২০১৯ ৭:১৩ : অপরাহ্ণ

বহুল সাধারণ মানুষের দীর্ঘদিনের দাবির প্রেক্ষিতে সড়কে দুর্ঘটনা হ্রাস ও শৃংখলা ফেরাতে সড়ক পরিবহন আইন ১ নভেম্বর থেকে কার্যকর হলেও আইনটি ১ নভেম্বর থেকে শুরু হলেও আগামী সপ্তাহ থেকে পুরোপুরি কার্যকর হবে।

আইনের খসড়ায় ড্রাইভিং লাইসেন্স ছাড়া গাড়ি চালালে ৬ মাসের কারাদণ্ড বা ৫০ হাজার টাকা জরিমানা বা উভয়দণ্ডের বিধান রাখা হয়। গাড়ি চালানোর সময় চালকদের মোবাইল ফোন ব্যবহারের জন্যও দণ্ডের বিধান রাখা হয়েছে।

আইনে বলা হয়েছে, অষ্টম শ্রেণি পাস না করলে লাইসেন্স পাবেন না চালকরা। গাড়ি চালানোর সময় মোবাইল ফোন ব্যবহার করা যাবে না। মোবাইল ফোন ব্যবহার করলে এক মাসের কারাদণ্ড ও ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হবে। আইনে সাধারণ চালকের বয়স আগের মতোই কমপক্ষে ১৮ বছর এবং পেশাদার চালকদের বয়স হতে হবে কমপক্ষে ২১ বছর। জাল ড্রাইভিং লাইসেন্স ব্যবহারের জন্য দুই বছরের কারাদণ্ড ও জরিমানা ৩ লাখ টাকা করার প্রস্তাব করা হয়। ফিটনেস চলে যাওয়ার পরেও মোটরযান ব্যবহার করলে এক বছরের কারাদণ্ড বা সর্বোচ্চ এক লাখ টাকা জরিমানা করা হবে।

দুর্ঘটনার জন্য দণ্ডবিধি অনুযায়ী তিন রকমের বিধান রয়েছে। নরহত্যা হলে ৩০২ ধারা অনুযায়ী মৃত্যুদণ্ডের সাজা হবে। খুন না হলে ৩০৪ ধারা অনুযায়ী যাবজ্জীবন। বেপরোয়াভাবে গাড়ি চালিয়ে মৃত্যু ঘটালে ৩০৪ (বি) ধারা অনুযায়ী তিন বছরের কারাদণ্ড হবে। দুই গাড়ি পাল্লা দিয়ে দুর্ঘটনা ঘটালে তিন বছরের কারাদণ্ড বা ২৫ লাখ টাকা জরিমানা বা উভয় দণ্ড দেওয়া হবে। দুর্ঘটনায় না পড়লেও বেপরোয়াভাবে গাড়ি চালানোর জন্য আইনে সর্বোচ্চ দুই বছরের কারাদণ্ড অথবা ২ লাখ টাকা জরিমানার প্রস্তাব করা হয়েছে আইনে। নারী, শিশু, প্রতিবন্ধী ও বয়ঃজ্যেষ্ঠ যাত্রীর জন্য সংরক্ষিত আসনে অন্য কোনো যাত্রী বসলে এক মাসের কারাদণ্ড বা ৫ হাজার টাকা জরিমানা বা উভয় দণ্ড দেয়া হবে।

২০৪১ সালের মধ্যে দেশকে উন্নত রাষ্ট্রগঠন,মানুষের মৌলিখ অধিকার নিশ্চিত করনে সরকার নিরলস পরিশ্রম করে যাচ্ছে। উন্নত রাষ্ট্র গঠনে সাধারণ মানুষের রাস্তায় চলাফেরার নিরাপত্তা নিশ্চিতে সরকার যে আইন প্রণয়ন করেছে তা অত্যন্ত যুগোপযোগী।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বার বার বলেছেন, দুর্ঘটনা ঘটলে আইন হাতে তুলে নেবেন না। দেখবেন আগে কে দোষী,পথচারীর ভুল না চালকের না অন্য কোন কারণ।আইনপ্রয়োগকারী সংস্থাকে ঘটনা তদন্তে ও আইনগত ব্যবস্থা নিতে সহায়তা দিন।-বাবুল আহমেদ, বটতলী, লোহাগাড়া।

বিএনএনিউজ২৪.কম/ এহক।

সড়ক পরিবহন আইনের বিস্তারিত জানতে ক্লিক করুন এখানে

Print Friendly and PDF

ট্যাগ :

আরো সংবাদ

আর্কাইভ
November 2019
F S S M T W T
« Oct   Dec »
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
3031